ঈশ্বরদীতে রেললাইন থেকে কলেজ ছাত্রের কবজি কাটা লাশ উদ্ধার

0
178

ঈশ্বরদী (পাবনা)  সংবাদদাতাঃ ঈশ্বরদীতে রেললাইন থেকে কলেজ ছাত্রের কবজি কাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।গতকাল সােমবার ঈশ্বরদীর মুলাডুলি ইউনিয়নের বাঘহাসলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সংলগ্ন (মাঝগ্রাম-পাবনা রেললাইন) রেললাইনের ওপর থেকে গতকাল সােমবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে মেহেদী হাসান সুমন (১৭) নামের এক কলেজ ছাত্রের হাতের কবজি কাটা লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।  নিহত সুমন পাবনা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের ছাত্র ও একই এলাকার আইনাল হক মাস্টারের ছেলে।রেললাইনের ঢালে মহিষ চরানাে রাখালদের বরাত দিয়ে এলাকাবাসী জানান, সকালে কিছু মহিষ রাখাল রেললাইনের ঢালে মহিষ চরানাের সময় রেললাইনের ওপর লাশটি পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়দের জানালে তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে  লাশটি সুমনের বলে শনাক্ত করেন। তার ডান হাতের কবজি কাটা ও ডান কানের নিচে ধারালাে সরু অস্ত্রের আঘাতের র্গতের চিহ্ন দেখে ধারণা করা হচ্ছে তাকে পরকিল্পতিভাবে কে বা কারা  হত্যা করে পালিয়েছে।। এই হত্যার ঘটনাকে রেললাইনে আত্মহত্যা বলে চালিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা মতে লাশটি রেললাইনের ওপর রাতের কােনো একসময় হত্যাকারীরা রেখে গেছে।
গতকাল সােমবার সে র্পযন্ত এই রেল রুটে কােনো ট্রেন চলাচল না করার কারণে হত্যাকারীদের সেই পরিকল্পনা র্ব্যথ হয়েছে।  নিহতের পরিবার সুত্র মতে, রবিবার রাত থেকে সুমন নিখোঁজ ছিল।  আজ (সোমবার) সকালে লােকমুখে শুনে ঘটনাস্থলে গিয়ে সুমনের লাশ দেখতে পাওয়া যায়। তবে কি কারণে এবং কারা সুমনকে হত্যা করেছে তা এখনাে তাদের বােধগম্য নয় বলে পরবিাররে পক্ষ থেকে দাবি করা হচ্ছে। মুলাডুলি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সেলিম মালিথা জানান, হত্যার আসল কারণ জানা সম্ভব হয়নি। তদন্ত হলেই হত্যার আসল কারণ জানা যাবে।  তবে পারিবারিকভাবে নিহত সুমনের পরিবারের সঙ্গে কারও র্পূবশত্রুতা থাকার খবর আমার জানা নেই।  ঈশ্বরদী থানার ভারপ্রাপ্ত র্কমর্কতা (ওসি) বাহাউদ্দিন ফারকী জানান, রেললাইনের ওপর লাশটি পাওয়া গেছে। তাই বিষয়টি রেলওয়ে থানার নিয়ন্ত্রণে।ঈশ্বরদী রেলওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত র্কমর্কতা (ওসি) সুবির দত্ত জানান, সীমানাটা ঈশ্বরদী থানার মধ্যে, তবে এটা রেলওয়ের থানার সীমানানুসারে সিরাজগঞ্জ রেলওয়ে থানার নিয়িন্ত্রণে। ঘটনাস্থলে পুলিশ রয়েছে। সিরাজগঞ্জ রেলওয়ে থানা থেকে পুলিশ আসলেই লাশটি পরর্বতী আইনগত প্রক্রিয়া গ্রহণের জন্য হস্তান্তর করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here