ডি ভিলিয়ার্স বিশ্বকাপে দলকে সমর্থন দেওয়াতেই জোর দিচ্ছেন

0
130

অনলাইন ডেস্কঃবিশ্বকাপে খেলতে চেয়েছিলেন দক্ষিণ আফ্রিকার তারকা ব্যাটসম্যান এবি ডি ভিলিয়ার্স! আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়ার প্রায় এক বছর পর ফিরতে চেয়েছিলেন দলের কথা ভেবে। কিন্তু তাঁকে প্রত্যাবর্তনের সুযোগ দেয়নি দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট বোর্ড।

বিশ্বকাপের চূড়ান্ত দল ঘোষণার ঠিক ২৪ ঘণ্টা আগে নাকি দলে ফেরার ইচ্ছের কথা জানিয়েছিলেন এবি। নির্বাচক, কোচ এবং অধিনায়কদের ইচ্ছার কথা জানিয়েছিলেন সরাসরি। কিন্তু নীতিগত অবস্থানের যুক্তি দেখিয়ে তাঁর দলে ফিরে আসার আবেদন নাকচ করে দিয়েছিল দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেট বোর্ড।

সেই খবর সংবাদমাধ্যমে আসার পর তা নিয়ে বিবৃতি দিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট বোর্ড। আলোচনার ঝড় উঠতেও সময় লাগেনি। বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপর্যয়ে বিষয়টি আরও বেশি গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছে। এমন সময়ে খোদ ডি ভিলিয়ার্স কী বলছেন তা নিয়ে কৌতূহল ছিল সবার। গতকাল একটি টুইটে ডি ভিলিয়ার্স বিষয়টি নিয়ে এখন মাথা ঘামাতে মানা করেছেন। বরং দলের কঠিন সময়ে ক্রিকেটারদের ওপর বিশ্বাস রেখে তাদের সমর্থন দিয়ে যাওয়াটাকেই জরুরি মনে করছেন, ‘এখন আমাদের সবার বিশ্বকাপে দলকে সমর্থন দেওয়াটা বেশি গুরুত্বপূর্ণ। এখনো অনেকটা পথ যাওয়া বাকি। আমার বিশ্বাস ক্রিকেটাররা দলকে শেষ পর্যন্ত টেনে নিয়ে যাওয়ার সামর্থ্য রাখে।’

টানা তিন ম্যাচ হেরে দক্ষিণ আফ্রিকার বিশ্বকাপ যাত্রার এখন লেজেগোবরে অবস্থা। ইংল্যান্ড, বাংলাদেশ এবং ভারতের সঙ্গে তেমন কোনো প্রতিদ্বন্দ্বিতা না গড়েই দেখেছে হারের মুখ। বিশেষভাবে দলের মিডল অর্ডারের ব্যাটিং বেশি ভোগাচ্ছে তাদের। ডুসেন-ডুমিনিদের ওপর ভর করে হারের বৃত্ত থেকে বের হওয়ার সম্ভাবনা দেখছেন না প্রোটিয়া ভক্তরাও। তাই ক্ষণে ক্ষণেই সবার দীর্ঘশ্বাস উঠছে, যদি ডি ভিলিয়ার্স থাকতেন! সেই সময়েই ডি ভিলিয়ার্স দলে ফিরে আসতে চাওয়ার খবরটি সামনে এসেছে।

গত বছর মে মাসে সব ধরনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দেন এবি ডি ভিলিয়ার্স। তবে বিশ্বজুড়ে টি-টোয়েন্টি লিগগুলোতে খেলা চালিয়ে যাচ্ছেন। ২০১৫ বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকাকে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন এবি ডি ভিলিয়ার্স। সেবার সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে কপাল পুড়েছিল প্রোটিয়াদের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here